সোমবার, ২৫ জানুয়ারী ২০২১, ০৭:২১ অপরাহ্ন

করোনার উপসর্গ নিয়ে মৃত্যু : ৬ ঘণ্টায়েও কেউ এগিয়ে আসেনি

রিপোর্টারের নাম
  • আপডেট টাইম : শনিবার, ৬ জুন, ২০২০
  • ৩১ বার

নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁওয়ে করোনার উপসর্গ নিয়ে এক নারী মারা যাওয়ার পর ভয়ে লাশ দাফনে কেউ এগিয়ে আসেনি। প্রায় ৬ ঘণ্টা ঘরের ভেতরে পড়ে ছিল লাশ। পরে লাশ দাফনের ব্যবস্থা করে স্বেচ্ছাসেবক একটি দল।

এলাকাবাসী জানায়, ওই নারী কয়েকদিন ধরে জ্বর, ঠাণ্ডা, শ্বাসকষ্ট ও গলা ব্যাথাসহ করোনাভাইরাসের বিভিন্ন উপসর্গে ভোগছিলেন।

শুক্রবার সন্ধ্যার দিকে উপজেলার জামপুর ইউনিয়নের আলমপুরা গ্রামের ওই নারীর মৃত্যু হয়। মৃত্যুর পর ভয়ে আত্মীয়-স্বজন ও এলাকাবাসী করোনার ভয়ে লাশের পাশে যাননি। খবর পেয়ে নারায়ণগঞ্জ-৩ আসনের সংসদ সদস্য ও জাতীয় পার্টির অতিরিক্ত মহাসচিব লিয়াকত হোসেন খোকা তার স্বেচ্ছাসেবক দলকে রাতে দাফনের জন্য নিহতের বাড়িতে পাঠান। রাত ১২টার দিকে স্বেচ্ছাসেবক দলটি উপস্থিত হয়ে লাশ ঘর থেকে বের করে গোসল করিয়ে জানাজা দিয়ে রাত তিনটার দিকে দাফন কার্য শেষ করে।

ওই স্বেচ্ছাসেবক দলটির দলনেতা মো: সানাউল্লাহ বেপারি বলেন, এমপি রাতেই নিহতের লাশ দাফনের জন্য ওই বাড়িতে পাঠান। রাত ১২টার দিকে ওই বাড়িতে গিয়ে লাশ ঘর থেকে বের করে নানাখি কবরস্থানে দাফন করা হয়।

মো: সানাউল্লাহ বেপারীর নেতৃত্বে ওই দলে আরো ছিলেন, মো: আবু কালাম, মো: আলী আকবর, মো: গোলজার হোসেন, মাহমুদুল হাসান হৃদয়, গাজী শাহ আলম, মোহাম্মদ ওমর ফারুক, মো: মামুন, আল আমিন ও নারী স্বেচ্ছাসেবক মোসা: হোসনেয়ারা বেগম।

সংসদ সদস্য লিয়াকত হোসেন খোকা বলেন, করোনা পরিস্থিতি মোকাবেলায় বিভিন্ন পর্যায়ে দল গঠন করে দেয়া হয়েছে। করোনায় মরে লাশ পড়ে থাকে, দাফনের জন্য কেউ এগিয়ে আসে না। এটা অমানবিক। পরে স্বেচ্ছাসেবক টিম গিয়ে রাতে দাফন-কাফন করে।

নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..

© All rights reserved © 2019 WeeklyBangladeshNY.Net
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com