শনিবার, ১৭ এপ্রিল ২০২১, ০৬:২২ অপরাহ্ন

জ্যাইকা বাংলাদেশ ফ্রেন্ডস সোসাইটির স্বাধীনতা দিবস পালন, দুই মুক্তিযোদ্ধা আর ২ কর্মকর্তাকে সংবর্ধনা 

রিপোর্টারের নাম
  • আপডেট টাইম : রবিবার, ৪ এপ্রিল, ২০২১
  • ১৭ বার

নিউইয়র্কের অন্যতম সনামধন্য সামাজিক সংগঠন জ্যামাইকা বাংলাদেশ ফ্রেন্ডস সোসাইটি একাত্তুরের বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মান জানানোর মধ্য দিয়ে বাংলাদেশ স্বাধীনতা দিবস তথা স্বাধীনতার সূবর্ণজয়ন্তী পালন করেছে। একই সাথে সংগঠনের দু’জন কর্মকর্তা নিউইয়র্ক সিটি ছেড়ে আলবেনী চলে যাওয়ার সিদ্ধান্তে তাদেরকে বিদায় সংবর্ধনা জানিয়েছে। মহামারী করোনাভাইরাসের কারণে স্বাস্থ্যবিধি মেনে সীমিত পরিসরে এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। নিউইয়র্ক সিটির জ্যামাইকার হিলসাইড এভিনিউস্থ স্টার কাবাব রেষ্টুরেন্টে গত ২৬ মার্চ শুক্রবার সন্ধ্যায় আয়োজিত অনুষ্ঠানে উপস্থিত সংবর্ধিত বীর মুক্তিযোদ্ধাদ্বয় হলেন ফ্রেন্ডস সোসাইটির অন্যতম উপদেষ্টা মোহাম্মদ মনির হোসেন ও বীর মুক্তিযোদ্ধা কাজী কামাল। তাদের হাতে ফুলে তোড়া দিয়ে সংবর্ধিত করা হয়। এছাড়াও বিদায়ী দুই কর্মকর্তা হলেন সংগঠনের সাংগঠনিক সম্পাদক মোহাম্মদ আনোয়ার হোসেন ও কোষাধ্যক্ষ হামিদুর রহমান প্রিন্স। তাদের হাতে ক্রেস্ট তুলে দেন উপস্থিত কর্মকর্তারা। এছাড়াও অনুষ্ঠানে ফ্রেডন্স সোসাইটির অন্যতম উপদেষ্টা ছদরুন নূর সহ যারা অসুস্থ আছেন তাদের আশু সুস্থ্যতা কামনা করে বিশেষ মোনাজাত করা হয়।
বতিক্রমী এই অনুষ্ঠানে সভাপত্বি করেন ফ্রেন্ডস সোসাইটির প্রধান উপদেষ্টা এবিএম ওসমান গণি। অনুষ্ঠানের শুরুতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন সংগঠনের সভাপতি মোহাম্মদ ফখরুল ইসলাম দেলোয়ার। সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আল আমীন রাসেলের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন ফ্রেন্ডস সোসাইটির উপদেষ্টা রেজাউল করীম চৌধুরী ও ফারুক তালুকদার, সহ সভাপতি আব্দুল মন্নাফ তালুকদার, সাবেক সভাপতি মোহাম্মদ সাইফুল ইসলাম, সাবেক সাধারণ সম্পাদক সেবুল মিয়া, সিটির কাউন্সিল ডিষ্ট্রিক্ট-২৪ থেকে কাউন্সিলম্যান পদপ্রার্থী সাবুল উদ্দিন, সহ সাধারণ সম্পাদক এডেভোকেট মোহাম্মদ কামরুজ্জামান বাবু প্রমুখ।
অনুষ্ঠানে সংগঠনের অন্যতম উপদেষ্টা এবিএম সালাহউদ্দিন আহমেদ ও সহ সাধারণ সম্পাদক রিজু মোহাম্মদ সহ অন্যান্য কর্মকর্তা উপস্থিত ছিলেন।
অনুষ্ঠানে বক্তারা ফ্রেন্ডস সোসাইটির কর্মকান্ড তুলে ধরে বক্তারা নিজেদের মধ্যকার সৌহার্দ-সম্প্রীতি আরো সুদৃঢ় করার পাশাপাশি মহামারী করোনাকালে যেভাবে মানুষের পাশে দাঁড়িয়ে সেবার দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে তা অব্যাহত রাখার উপর গুরুত্তারোপ করেন।
উল্লেখ্য, ইতিপূর্বে জ্যামাইকা বাংলাদেশ ফ্রেন্ডস সোসাইটির আরো তিন কর্মকর্তা জ্যামাইকা ছেড়ে অন্যত্র চলে গেছেন। তাদের মধ্যে উপদেষ্টা মুক্তার হোসেন ও আলী কে কনক বাফেলো এবং সাবেক সাধারণ সম্পাদক রেজাউল আজাদ ভূইয়া পেনসেলভেনিয়া সপরিবারে আবাস গড়েছেন।

নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..

© All rights reserved © 2019 WeeklyBangladeshNY.Net
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com