শনিবার, ১৭ এপ্রিল ২০২১, ০৮:৫০ অপরাহ্ন

ফকরকে ‘ধাপ্পা’ দিয়ে রান-আউট, ডি’ককের ক্রিকেটীয় স্পিরিট নিয়ে প্রশ্ন

রিপোর্টারের নাম
  • আপডেট টাইম : সোমবার, ৫ এপ্রিল, ২০২১
  • ১৬ বার

রানিং বিটুইন দ্য উইকেট কোনো ব্যাটসম্যানকে শব্দ দ্বারা প্রভাবিত করা কিংবা ছল-চাতুরির আশ্রয় নিয়ে বিভ্রান্ত করা, অথবা ব্যাটসম্যানের রান নিতে বাধা সৃষ্টি করা আন্তর্জাতিক ক্রিকেট সংস্থা আইসিসি’র গঠনতন্ত্রের এক্কেবারে পরিপন্থী। বিশ্ব ক্রিকেটের নিয়ামক সংস্থার রুলবুকের ৪১.৫ ধারায় স্পষ্ট উল্লেখ রয়েছে বিষয়টি। অথচ জোহানেসবার্গে রোববার কী সেই নিয়ম বিরুদ্ধ কাজটাই করে বসলেন না প্রোটিয়া উইকেটরক্ষক কুইন্টন ডি’কক? জোরালো হচ্ছে প্রশ্ন।

প্রশ্ন এটাও যে গোটা ঘটনা কীভাবে নজর এড়িয়ে গেল আম্পায়ারদের। ৪১.৫ ধারায় যেখানে স্পষ্ট উল্লেখ রয়েছে কোনো দল এমন প্রতারণার আশ্রয় নিলে বিপক্ষ ব্যাটসম্যান আউট তো হবেনই না, উল্টা ৫ রান পেনাল্টি দেয়া হবে বিপক্ষ দলকে, সেখানে অন-ফিল্ড আম্পায়রদ্বয়ের ভূমিকা আতস কাচের নিচে আসবে বৈকি।

রোববার জো’বার্গে দক্ষিণ আফ্রিকার ছুঁড়ে দেয়া ৩৪২ রানের লক্ষ্যমাত্রা ছুঁতে অন্তিম ওভারে পাকিস্তানের তখন প্রয়োজন ৩১ রান। দ্বিশতরান থেকে মাত্র ৮ রান দূরত্বে দাঁড়িয়ে পাক ওপেনার ফকর জামান। লুঙ্গি এনগিদির প্রথম বল লং-অফে ঠেলে প্রথম রানটা নির্বিঘ্নেই সম্পন্ন করেন ফকর। কিন্তু দ্বিতীয় রান পূর্ণ করার আগে পাকিস্তানি ব্যাটসম্যানকে বিভ্রান্ত করেন প্রোটিয়া উইকেটরক্ষক কুইন্টন ডি’কক। তিনি পিচের সোজাসুজি হাত তুলে এমন ইশারা করেন যেন থ্রো-টা লং অফ থেকে নয় বরং লং অনের কাছাকাছি কোনো অঞ্চল থেকে আসছে।

ব্যস, ফাঁদে পা দিয়ে বসেন ফকরও। ডি’ককের ইশারা মতো পাকিস্তানি ব্যাটসম্যান পিছনে ফিরে দেখতেই লং অফ থেকে এইডেন মার্করামের থ্রো এসে উইকেট ভেঙে দেয়। ক্রিজে পৌঁছতে ব্যর্থ হন পাকিস্তানি ওপেনার। এই ঘটনায় প্রশ্ন উঠে গিয়েছে ডি’ককের ক্রিকেটীয় স্পিরিট নিয়ে। আইসিসি’র রুলবুকের পরিপন্থী হওয়া সত্ত্বেও কীভাবে এটি করলেন প্রোটিয়া উইকেটরক্ষক, তা নিয়ে উত্তাল সোশ্যাল মিডিয়া।

ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে টুইটারে প্রশ্ন ছুঁড়ে দিয়েছেন সাবেক স্পিডস্টার শোয়েব আখতারও। ‘রাওয়ালপিন্ডি এক্সপ্রেস’ মাইক্রোব্লগিং সাইটে অনুরাগীদের জন্য একটি পোল চালু করেছেন। যেখানে তিনি প্রশ্ন রেখেছেন, ‘কুইন্টন ডি’ককের এই রান আউট কী ক্রিকেটীয় স্পিরিটের পরিপন্থী নয়?’ সেখানে পক্ষে কিংবা বিপক্ষে নিজের মত জানাতে পারবেন অনুরাগীরা। তবে পাকিস্তানি সমর্থকেরা সোশ্যাল মিডিয়ায় একজোটে বলছেন ডি’কক প্রতারণা করেছেন রান আউটটি করার ক্ষেত্রে। এখন দেখার অন-ফিল্ড আম্পায়ারদ্বয় এড়িয়ে গেলেও ম্যাচ রেফারির রিপোর্টে ঘটনাটির উল্লেখ থাকে কিনা।

যদি থাকে সেক্ষেত্রে শাস্তির মুখে পড়তে পারেন কুইন্টন ডি’কক। ১৯৩ রানে জামান আউট হওয়ার পর এদিন লক্ষ্যমাত্রায় পৌঁছতে পারেনি পাকিস্তান। ১৭ রানে ম্যাচ জিতে তিন ম্যাচের সিরিজে সমতা ফেরায় দক্ষিণ আফ্রিকা।

সূত্র : কলকাতা

নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..

© All rights reserved © 2019 WeeklyBangladeshNY.Net
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com