বুধবার, ০৫ অক্টোবর ২০২২, ০৫:৫৬ পূর্বাহ্ন

কোরিয়াগামীদের দেশেই ৭ দিনের কোয়ারেন্টিন : বিদেশগামীরা টিকা পাবেন আগে

রিপোর্টারের নাম
  • আপডেট টাইম : রবিবার, ৬ জুন, ২০২১
  • ৬১ বার

দক্ষিণ কোরিয়ায় যেতে ইচ্ছুকদের দেশেই ৭ দিনের বাধ্যতামূলক কোয়ারেন্টিনে থাকতে হবে। সৌদি আরবগামী প্রবাসীদের জন্য সরকার ঘোষিত ভর্তুকির টাকা সরাসরি প্রবাসীর অ্যাকাউন্টে দেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছে। এ ছাড়া দেশটিতে যেতে অস্বাভাবিক বিমানভাড়া যৌক্তক পর্যায়ে রাখার ব্যাপারে এবং অনেক দেশ করোনা মোকাবিলায় টিকা সার্টিফিকেট বাধ্যতামূলক করায় বিদেশগামীদের টিকায় অগ্রাধিকারের সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়েছে। গত ৩০ মে অনুষ্ঠিত আন্তঃমন্ত্রণালয় সভায় এসব সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত হয়েছে।

সূত্র জানায়, আন্তঃমন্ত্রণালয় বৈঠকে জানানো হয়, কম অভিবাসন ব্যয়ে সুষ্ঠু ও নিরাপদ অভিবাসন ব্যবস্থাপনার মাধ্যমে বাংলাদেশ থেকে দক্ষিণ কোরিয়ায় ইপিএস প্রক্রিয়ায় ও জিটুজি পদ্ধতিতে কর্মী পাঠানো হয়ে থাকে। কোভিড-১৯ পরিস্থিতিতে ভিসা নিষেধাজ্ঞা আরোপ করায় গত বছরের ১৮ মার্চ থেকে দক্ষিণ কোরিয়ায় ইপিএস কর্মী গমন সাময়িক বন্ধ হয়।

তবে সে বছরের মে ও জুন মাসে বিশেষ ফ্লাইটে কোরিয়ায় বাংলাদেশি কর্মীরা গিয়েছেন। বর্তমানেও সীমিত আকারে ইপিএসবহির্ভূত বিভিন্ন পেশায় বাংলাদেশি নাগরিকরা কোরিয়ায় যাচ্ছেন। বাংলাদেশের ইতিবাচক ভাবমূর্তি রক্ষা ও শ্রমবাজার টেকসই করার লক্ষ্যে দক্ষিণ কোরিয়ার নাগরিক ছাড়া বাংলাদেশ থেকে গমনেচ্ছু সব যাত্রীর ঢাকায় সাত দিনের বাধ্যতামূলক কোয়ারেন্টিন সম্পন্ন করার নির্দেশনা জারি করার বিষয়ে সভায় সবাই মত প্রকাশ করেন।

অন্যদিকে বৈঠকে ঢাকা থেকে সৌদি আরবে গমনেচ্ছুদের অস্বাভাবিক বিমান ভাড়ার বিষয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করা হয়। নেপাল ও কলকাতা থেকে সৌদি আরব যেতে বিমান ভাড়ার উল্লেখ করে প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের সচিব বলেন, সম্প্রতি মধ্যপ্রাচ্যের বিভিন্ন দেশে গমনকারী কর্মীদের বিমান ভ্রমণের ক্ষেত্রে বাংলাদেশ বিমানসহ বিভিন্ন এয়ারলাইন্সের বিমান ভাড়া অস্বাভাবিকভাবে বেড়েছে। কোনো কোনো ক্ষেত্রে বিভিন্ন গন্তব্যের বিমান ভাড়া দুই গুণ বা তিন গুণ বৃদ্ধি করা হয়েছে।

কাঠমান্ডু ও কলকাতা থেকে যেখানে সৌদি আরবে বিমান ভাড়া যথাক্রমে ১৮ হাজার ও ২৫-৩০ হাজার টাকা, সেখানে ভাড়া করা হয়েছে ৭০ হাজার থেকে ১ লাখ টাকা। অথচ স্বাভাবিক সময়ে এ ভাড়া ছিল ৩০ থেকে ৪০ হাজার টাকা। তিনি বলেন, কর্মী গমন বৃদ্ধির সঙ্গে সঙ্গে ভাড়ার পরিমাণ এভাবে বৃদ্ধিকে কোনোভাবেই যৌক্তিক মনে হয় না এবং বিদেশগামী কর্মীদের ওপর অভিবাসন ব্যয়ের বাড়তি চাপ অসহনীয় হয়ে উঠেছে। তিনি বিদেশগামী কর্মীদের জন্য ‘লেবার ফেয়ার’ নামে বিশেষ ভাড়া চালুর বিষয়টি বিবেচনায় নেওয়ার সুপারিশ করেন।

এ ছাড়া পাসপোর্টের মেয়াদ ৬ মাসের কম থাকলে দ্রুততম সময়ের মধ্যে নবায়ন বা নতুন পাসপোর্টের জন্য আবেদন করতে বিদেশ গমনেচ্ছুকর্মীদের তাগিদ দেওয়া হয় বৈঠক থেকে। বিদেশগামী কর্মীদের যাত্রা ঝুঁকিমুক্ত করার লক্ষ্যে এ আহ্বান জানানো হয়। বৈঠকে জানানো হয়, ইতোমধ্যে কোনো কোনো দেশ তাদের দেশে গমনের ক্ষেত্রে বাংলাদেশি কর্মীদের করোনা ভ্যাকসিন প্রদানের বাধ্যবাধকতার শর্ত আরোপ করেছে এবং ক্রমান্বয়ে অন্য দেশও এ শর্ত আরোপ করবে বলে অনুমিত হচ্ছে।

এমতাবস্থায় বিদেশগামীদের টিকা প্রদানে অগ্রাধিকার পাবেন বলে সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। সিদ্ধান্ত হয়, বিদেশগামী ও বিদেশ গমনেচ্ছুদের বিদেশ গমন প্রক্রিয়ায় লিড টাইম কমানোর লক্ষ্যে জনসন অ্যান্ড জনসন ভ্যাকসিনের সিঙ্গেল ডোজ টিকা অথবা সিঙ্গেল ডোজের অনুরূপ টিকা সংগ্রহের বিষয়ে স্বাস্থ্যসেবা বিভাগ প্রয়োজনীয় উদ্যোগ নেবে।

প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ে সচিব বৈঠকে সরকার সৌদি আরব গমনেচ্ছুদের যে ভর্তুকি দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে তা এয়ারলাইন্সের মাধ্যমে দেওয়ার বিষয়ে মতামত ব্যক্ত করেন। তিনি বলেন, এয়ারলাইন্সগুলো বাধ্যতামূলক প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টিনে যাত্রীদের পক্ষে এ অর্থ প্রদান করবে। কিন্তু প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়ের সচিব এ বিষয়ে দ্বিমত পোষণ করেন। তিনি সরাসরি বিদেশগামীদের অ্যাকাউন্টে টাকা দেওয়ার বিষয়ে মত প্রকাশ করেন।

যুক্তি হিসেবে তিনি বলেন, এয়ারলাইন্সের মাধ্যমে ভর্তুকি দেওয়ার থেকে কর্মীদের ব্যাংক অ্যাকাউন্টে সরাসরি দেওয়া হলে তাদের মনোবল বাড়বে এবং কোনো মধ্যস্বত্ব না থাকায় ট্রাভেল এজেন্সির তাদের প্রাপ্যতা থেকে বঞ্চিত করার সুযোগ থাকবে না। এ ছাড়া সরকারের প্রদত্ত ভর্তুকি সরাসরি গমনেচ্ছুদের কাছে পৌঁছানো গেলে ফল আরও দৃশ্যমান হবে এবং স্বচ্ছতা বজায় থাকবে। সভার সবাই এ বিষয়ে একমত হন।

নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো খবর..

© All rights reserved © 2019 WeeklyBangladeshNY.Net
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com