বুধবার, ২৭ অক্টোবর ২০২১, ০৩:৪৬ অপরাহ্ন

এসএসসি-এইচএসসির নম্বর বিভাজন প্রকাশ

রিপোর্টারের নাম
  • আপডেট টাইম : মঙ্গলবার, ১২ অক্টোবর, ২০২১
  • ১৩ বার

এ বছর এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষায় কোনো বিষয়ে কত নম্বর থাকবে, রচনামূলক ও নৈর্ব্যক্তিক অংশে কত নম্বর থাকবে এবং কিভাবে নম্বর ভাগ হবে, তা প্রকাশ করেছে ঢাকা মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড।

চলতি বছরের মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট (এসএসসি) ও উচ্চমাধ্যমিক সার্টিফিকেট (এইচএসসি) পরীক্ষার সূচি আগেই জানানো হয়েছে। আগামী ১৪ নভেম্বর এসএসসি ও ২ ডিসেম্বর এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষা শুরু হবে।

আগের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, করোনা মহামারীর কারণে এবার এসএসসি-এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় সব বিষয়ে না নিয়ে কেবল গ্রুপভিত্তিক তিন বিষয়ে নেওয়া হবে। তিন ঘণ্টার পরীক্ষা হবে দেড় ঘণ্টায়।

কত নম্বরে পরীক্ষা : এসএসসি ও এইচএসসির বিজ্ঞান বিভাগের পরীক্ষার্থীরা প্রতি বিষয়ে ৩২ নম্বরের পরীক্ষা দেবে। এর মধ্যে রচনামূলক ২০ নম্বর ও এমসিকিউয়ে (নৈর্ব্যক্তিকে) থাকবে ১২ নম্বর। মানবিক ও ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগের শিক্ষার্থীরা ৪৫ নম্বরের পরীক্ষা দেবে। এর মধ্যে ৩০ রচনামূলক ও ১৫ নৈর্ব্যক্তিক। রচনামূলক ও নৈর্ব্যক্তিকের নম্বরকে ১০০ নম্বরে রূপান্তর করে প্রাপ্ত নম্বর নির্ধারণ করা হবে।

এসএসসির বিজ্ঞান শাখায় নম্বর বিভাজন : পদার্থ, রসায়ন, উচ্চতর গণিত ও জীববিজ্ঞান বিষয়ে পরীক্ষা দিতে হবে। রচনামূলক অংশে ৮টি প্রশ্ন থাকলেও যে কোনো ২টির উত্তর দিতে হবে। একেকটিতে ১০ নম্বর। নৈর্ব্যক্তিক অংশে ২৫টি প্রশ্নের মধ্যে ১২টির উত্তর দিতে হবে। বিজ্ঞানে শিক্ষার্থীদের ২০ নম্বরকে ৫০ ও নৈর্ব্যক্তিকের ১২ নম্বরকে ২৫ নম্বরে রূপান্তর করে মোট প্রাপ্ত নম্বর নির্ধারণ করা হবে।

এসএসসির মানবিক ও ব্যবসায় নম্বর বিভাজন : রচনামূলক অংশে ১১টি প্রশ্ন থাকলেও উত্তর দিতে হবে যে কোনো ৩টির। প্রতিটির মান ১০। নৈর্ব্যক্তিকে ৩০টি প্রশ্ন থাকলেও উত্তর দিতে

হবে ১৫টির। প্রতিটি প্রশ্নের জন্য ১ নম্বর করে মোট ১৫। রচনামূলক ৩০ নম্বরকে ৭০ ও নৈর্ব্যক্তিকের ১৫ নম্বরকে ৩০ নম্বরে রূপান্তর করে শিক্ষার্থীদের মোট নম্বর নির্ধারণ করবে বোর্ড। রচনামূলক পরীক্ষার জন্য সময় মিলবে ১ ঘণ্টা ১৫ মিনিট; নৈর্ব্যক্তিকে আরও ১৫ মিনিট।

এইচএসসির বিজ্ঞানের নম্বর বিভাজন : রচনামূলক অংশে ৮টি প্রশ্নের মধ্যে উত্তর দিতে হবে ২টির। প্রতিটি ১০ নম্বর। নৈর্ব্যক্তিক অংশে ২৫টি প্রশ্ন থাকবে। উত্তর দিতে হবে ১২টির। প্রতিটির মান ১ নম্বর। বিজ্ঞানের শিক্ষার্থীদের পরীক্ষার ২০ নম্বরকে ৫০ ও নৈর্ব্যক্তিকের ১২ নম্বরকে ২৫ নম্বরে রূপান্তর করে শিক্ষার্থীদের মোট প্রাপ্ত নম্বর নির্ধারণ করা হবে। বাকি ২৫ নম্বর ব্যবহারিক হবে।

এইচএসসির মানবিক ও ব্যবসায় নম্বর বিভাজন : রচনামূলক অংশে ১১টি প্রশ্নের মধ্যে উত্তর দিতে হবে ৩টির। প্রতিটির নম্বর ১০। আর নৈর্ব্যক্তিকে ৩০টি প্রশ্নের মধ্যে উত্তর দিতে হবে ১৫টির। প্রতিটির মান ১ নম্বর। রচনামূলক ৩০ নম্বরকে ৭০ নম্বরে ও নৈর্ব্যক্তিকের ১৫ নম্বরকে ৩০ নম্বরে রূপান্তর করে মোট প্রাপ্ত নম্বর নির্ধারণ করা হবে।

এসএসসির অ্যাসাইনমেন্টের নম্বর অন্তর্ভুক্তি ২৮ অক্টোবর পর্যন্ত : এসএসসি পরীক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্টের প্রাপ্ত নম্বর শিক্ষা বোর্ডে পাঠানোর সময় বৃদ্ধি বাড়ানো হয়েছে। আগামী ২৮ অক্টোবর পর্যন্ত তথ্য অন্তর্ভুক্ত করতে পারবেন প্রতিষ্ঠানপ্রধানরা। গতকাল সোমবার ঢাকা শিক্ষা বোর্ড থেকে এ নির্দেশনা জারি করা হয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..

© All rights reserved © 2019 WeeklyBangladeshNY.Net
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com